বুধবার   ০১ এপ্রিল ২০২০   চৈত্র ১৮ ১৪২৬   ০৭ শা'বান ১৪৪১

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
দেশে আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত ২৬ জন সুস্থ : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সেনাবাহিনী কতদিন মাঠে থাকবে সরকার বিবেচনা করবে: সেনাপ্রধান করোনায় খাদ্য ঘাটতি হবে না : কৃষিমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সে বক্তব্য রাখ‌ছেন প্রধানমন্ত্রী আজ সকালে ৬৪ জেলার কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর কনফারেন্স পিপিই যেন নষ্ট না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা মোকাবিলায় সরকার জনগণের পাশে আছে -প্রধানমন্ত্রী ছুটিতে কর্মস্থল ছাড়া যাবে না : সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন করোনা সংকটকালে জনগণের পাশে থাকবে আ.লীগ: কাদের আমি করোনায় আক্রান্ত হইনি : স্বাস্থ্যমন্ত্রী বাংলাদেশে ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত নেই : আইইডিসিআর পদ্মা সেতু‌তে বসলো ২৭তম স্প্যান, দৃশ্যমান হলো ৪ হাজার ৫০ মিটার সব পোশাক কারখানা বন্ধের নির্দেশ ভোলায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে নৌ-বাহিনীর টহল পবিত্র শবে বরাত ৯ এপ্রিল অতি প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে যাবেন না : প্রধানমন্ত্রী জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী জাতির উদ্দেশে আজ ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী নিষেধাজ্ঞা অক্ষরে অক্ষরে পালন করুন : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
১৯

আগামী সপ্তাহেই দেশের প্রথম এক্সপ্রেসওয়ের উদ্বোধন

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৪ মার্চ ২০২০  

চলতি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে উদ্বোধন হতে যাচ্ছে দেশের প্রথম একপ্রেসওয়ে ঢাকা-ভাঙা মহাসড়ক। পদ্মা সেতুর ২ পাশে নির্মিত এ ফোর লেন সড়কটি উদ্বোধন হলে সেতুর আগেই সুফল পেতে শুরু করবে দেশের দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের মানুষ। সরকার বলছে, মুজিববর্ষের ক্ষনগণনার শুরুর আগেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্বোধন করবেন এ এক্সপ্রেসওয়ে।  কোথাও থামবে না গাড়ি। নেই ট্রাফিক সিগন্যাল কিংবা ইন্টার ক্রসিংয়ের ঝামেলা। ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া গাড়ি পদ্মা সেতু হয়ে একই গতিতে পৌঁছে যাবে ফরিদপুর। এমনই পরিকল্পনা থেকে নির্মাণ করা হয়েছে ঢাকা-ভাঙ্গা ফোর লেন সড়ক।

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থেকে মাওয়া পর্যন্ত ৩৫ কিলোমিটার আর মাদারীপুর থেকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত ২০ কিলোমিটারের এ সড়কটি হতে যাচ্ছে দেশের প্রথম এক্সপ্রেসওয়ে। নির্মাণের পর এর মধ্যেই সড়কের বড় একটি অংশ উন্মুক্ত করে দেয়া হয়েছে যানবাহন চলাচলের জন্য। ফলে এখন থেকেই সুফল পাচ্ছেন চালক ও যাত্রীরা।
একজন চালক বলেন, গাড়ি চালাইতেও ভালো লাগতেছে যে একটানে মাওয়া যাইতে পারতেছি বইলা। 

এ মহাসড়কে ছোট বড় সেতু আছে ৩১টি। আছে ৬টি ফ্লাইওভার, ৪টি রেলওয়ে ওভারপাস, ১৫টি আন্ডারপাস আর ৩টি ইন্টারচেঞ্জের সুবিধা। ৪ লেনের মহাসড়কের দু’পাশে স্থানীয় যানবাহন চলার জন্য জায়গা থাকায় সু্বিধা পাওয়া যাবে ৬ লেনের। ২০১৬ সালে কাজ শুরু। শুরুতে ২০১৯ সালের শেষ করার কথা হলেও পরে মেয়াদ বাড়ে চলতি বছরের জুন মাস পর্যন্ত। এখন নির্ধারিত সময়ের আগেই খুলে দেয়া হচ্ছে এ মহাসড়ক। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, প্রস্তুতি চূড়ান্ত পর্যায়ে এখন। ১১ ও ১২ তারিখে ভিডিও কনফারেন্সে উদ্বোধন করবে। এ প্রকল্পের ব্যায় ধরা হয়েছিল সোয়া ৬ হাজার কোটি টাকা। পরে মেয়াদ বাড়ার সাথে সাথে বাজেট বেড়ে দাঁড়ায় প্রায় ১১ হাজার কোটি টাকা।

এই বিভাগের আরো খবর