• সোমবার   ০৬ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২২ ১৪২৬

  • || ১২ শা'বান ১৪৪১

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
প্রণোদনা প্যাকেজ বাস্তবায়ন হলে অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াবে: অর্থমন্ত্রী করোনা: ৭৩ হাজার কোটি টাকার আর্থিক সহায়তা প্যাকেজ ঘোষণা বেসরকারি হাসপাতাল চিকিৎসা না দিলেই ব্যবস্থা: স্বাস্থ্যমন্ত্রী প্রতি উপজেলা থেকে নমুনা সংগ্রহ করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর আজ থেকে কঠোর অবস্থানে যাচ্ছে সেনাবাহিনী মানুষের পাশে না দাঁড়িয়ে সমালোচনা করছে বিএনপি : কাদের দেশে আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত ২৬ জন সুস্থ : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সেনাবাহিনী কতদিন মাঠে থাকবে সরকার বিবেচনা করবে: সেনাপ্রধান করোনায় খাদ্য ঘাটতি হবে না : কৃষিমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সে বক্তব্য রাখ‌ছেন প্রধানমন্ত্রী আজ সকালে ৬৪ জেলার কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর কনফারেন্স পিপিই যেন নষ্ট না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা মোকাবিলায় সরকার জনগণের পাশে আছে -প্রধানমন্ত্রী ছুটিতে কর্মস্থল ছাড়া যাবে না : সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন করোনা সংকটকালে জনগণের পাশে থাকবে আ.লীগ: কাদের আমি করোনায় আক্রান্ত হইনি : স্বাস্থ্যমন্ত্রী বাংলাদেশে ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত নেই : আইইডিসিআর পদ্মা সেতু‌তে বসলো ২৭তম স্প্যান, দৃশ্যমান হলো ৪ হাজার ৫০ মিটার সব পোশাক কারখানা বন্ধের নির্দেশ ভোলায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে নৌ-বাহিনীর টহল
১৫

আদালতে সাক্ষ্য দিলেন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ও রাসায়নিক পরীক্ষক

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

 

বরগুনার আলোচিত শাহনেওয়াজ রিফাত (রিফাত শরীফ) হত্যা মামলায় আদালতে সাক্ষ্য দিয়েছেন বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মাদ সিরাজুল ইসলাম গাজী, সিআইডির আইটি শাখার রায়ায়নিক পরীক্ষক রবিউল ইসলাম ও রাজু মিয়া নামের এক প্রত্যক্ষদর্শী। 

রবিবার সকাল থেকে রাত পর্যন্ত বরগুনা জেলা দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো: আছাদুজ্জামানের আদালতে তারা এ সাক্ষ্য প্রদান করেন। এসময় রাত হয়ে যাওয়ায় সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মাদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর সাক্ষ্য প্রদান চলমান রাখেন বিচারক। 

আদালত সূত্র জানায়, রবিবার সকালে প্রথমে সাক্ষ্য প্রদান করেন প্রত্যক্ষদর্শী রাজু মিয়া এরপর ঢাকা থেকে আগত রাসায়নিক পরীক্ষকের রবিউল ইসলামের সাক্ষ্যগ্রহণ করেন আদালত। এরপর মধ্যহ্ন বিরতির পর বিকেল তিনটার দিকে বরগুনা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সিরাজুল ইসলাম গাজী ৮জন আসামির ১৬৪ ধারায় প্রদান করা জবানবন্দির বর্ণনা তুলে ধরেন। এসময় রাত হয়ে যাওয়ায় আদালতের বিচারক তার(মোহাম্মাদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর) সাক্ষ্য প্রদান চলমান রাখেন। সোমবার তার সাক্ষ্যগ্রহণ করা হবে। 
সাক্ষিদের জেরা করেন ঢাকা থেকে আগত আসামি পক্ষের আইনজীবী ব্লাস্টের একিউএম ফারুক ও বরগুনা জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল বারি আসলাম। এসময় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ভুবন চন্দ্র হাওলাদার ও বাদির নিয়োজিত আইনজীবী মজিবুল হক কিসলু উপস্থিত ছিলেন।

সাক্ষ্যগ্রহণের সময় প্রাপ্তবয়স্ক ১০ আসামির আটজনকে আদালতে হাজির করে পুলিশ। এছাড়াও জামিনে থাকা আসামি আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিও আদালতে উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও বরগুনা নারী শিশু আদালতের বিচারক হাফিজুর রহমানের আদালতে এ মামলায় ১৪জন শিশু আসামির বিচারিক কার্যক্রম চলছে।

জেলা ও দায়রা আদালতে চারজন সাক্ষ্য শেষে সিআইডি ঢাকার ফরেনসিক ল্যাবরেটরি আইটি ফরেনসিক শাখার পুলিশ পরিদর্শক মো. বরিউল ইসলাম বলেন, আমি ১৮ জুলাই তদন্তকারী কর্মকর্তার পাঠানো ফেসবুক বন্ড ০০৭ ম্যাসেঞ্জার গ্রুপের আলামত প্রোফাইল এর স্ক্রিনশট, লিংক, ডাটা ডাউন লোড স্ক্রিনশট এর সফট কপি, পেন ড্রাইভে ভিডিও পরীক্ষা করে ১২৫ পৃষ্ঠার প্রতিবেদন ২৫ জুলাই বরগুনা প্রেরণ করি। 

রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবী পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) ভবন চন্দ্র হাওলাদার বলেন, আদালতে যে ৩ জন সাক্ষ্য দিয়েছেন। তারা সকলেই গুরুত্বপূর্ণ সাক্ষ্য। তার মধ্য বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ও ঢাকা সিআইডির ফরেনসিক ল্যাবরেটরির আইটি শাখার পুলিশ পরিদর্শক রবিউল ইসলাম বিশদ ভাবে তার প্রতিবেদন আদালতে উপস্থাপন করেছেন।

আদালত বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর