• শুক্রবার   ২৩ এপ্রিল ২০২১ ||

  • বৈশাখ ৯ ১৪২৮

  • || ১০ রমজান ১৪৪২

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
মেট্রোরেলের অগ্রগতি ৬১ শতাংশ : কাদের ‘শিশুবক্তা’ রফিকুল ৭ দিনের রিমান্ডে সম্মিলিত প্রয়াসে করোনা একদিন পরাজিত হবে: কাদের দেশে করোনায় আরও ৯৫ প্রাণহানি প্রকৌশলে গুচ্ছ পদ্ধতির ভর্তি আবেদন শুরু ২৪ এপ্রিল ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঘটনায় আরও ১১ জন গ্রেফতার চুক্তিভিত্তিক বিয়ের বৈধতা নেই: হক্কানী আলেম সমাজ করোনায় প্রাণ গেল আরও ৯১ জনের নারায়ণগঞ্জকাণ্ডে মামুনুলের সম্পৃক্ততা আছে: সিআইডি বিএনপির আমলে যে সার ৯০ টাকা ছিল আজ তা ১২ টাকা : প্রধানমন্ত্রী করোনায় দেশে ১১২ জনের মৃত্যু হেফাজত নেতা মামুনুল ৭ দিনের রিমান্ডে করোনায় দেশে ১০২ জনের মৃত্যু লকডাউনে ১ কোটি ২৫ লাখ পরিবার পাবে খাদ্য সহায়তা: কাদের হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হক গ্রেফতার করোনায় দেশে আজও শতাধিক মৃত্যু হেফাজত নেতা জুবায়ের পাঁচদিনের রিমান্ডে হেফাজত নেতা মাওলানা জালাল গ্রেফতার দেশে করোনায় মৃত্যু ১০ হাজার ছাড়াল সরবরাহ কম থাকায় চালের দাম বেশি : অর্থমন্ত্রী

কমলাপুর না ভেঙে নির্মিত হচ্ছে মেট্রোরেলের শেষ স্টেশন

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২২ মার্চ ২০২১  

রাজধানীর কমলাপুর রেলস্টেশন ভেঙে নয়, সামনে নির্মিত হচ্ছে মেট্রোরেলের শেষ স্টেশন। কেটে গেছে নকশা জটিলতা। রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের আপত্তিতে এই পরিবর্তন। এই আন্তঃসংযোগের ফলে রেল ব্যবস্থাপনায় গতি আসবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

এমআরটিএ লাইন সিক্সের আওতায় মেট্রোরেলের কাজ শুরু হয় হচ্ছে উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত। পরে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ নির্দেশে তা কমলাপুর পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়। তবে বাদ সাধে এর নকশা। শেষ স্টেশনে গিয়ে রেলের শন্টিং পয়েন্ট নির্ধারণ করা হয় কমলাপুর রেল স্টেশনের উত্তর পাশে, যা কমলাপুরের মূল স্টেশনের অবকাঠামো ঢেকে দেয়। পাশাপাশি এই স্টেশনকে ঘিরে যে হাব তৈরির পরিকল্পনা ছিল তার সঙ্গেও সাংঘর্ষিক।

মেট্রোরেলের লাইন-৬ এর মো. আব্দুল বাকি বলেন, রেলের আপত্তিতে মেট্রোরেলের শেষ স্টেশনের নকশার পরিবর্তন এনে শন্টিং পয়েন্ট দক্ষিণ পাশে নেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

রেল মন্ত্রণালয় বলছে, নকশা সংশোধনের পর সংঘর্ষ নয় বরং সমন্বয় হয়েছে।

আর কমলাপুর রেলস্টেশন ভেঙ্গে নতুন করে নির্মানের পরিকল্পনার সঙ্গে মেট্রোরেলের কোনো সম্পর্ক নেই বলেও জানান রেলমন্ত্রী মো. নরুল ইসরাম সুজন।

এদিকে উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত মেট্রোরেলের কাজ দৃশ্যমান হলেও মতিঝিল থেকে কমলাপুর অংশের কোনো কাজ শুরু করেনি কর্তৃপক্ষ।