• বৃহস্পতিবার   ২৬ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১১ ১৪২৭

  • || ১০ রবিউস সানি ১৪৪২

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
এসআই আকবরকে পালাতে সহায়তাকারী ২ পুলিশ বরখাস্ত করোনায় আরও ৩৯ জনের মৃত্যু ডিসেম্বরেই এইচএসসির ফল: শিক্ষামন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৮, শনাক্ত ২৪১৯ শিক্ষার্থী সাওদা হত্যাকাণ্ডে আসামির যাবজ্জীবন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৮, শনাক্ত ২০৬০ স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃত করাই বিএনপির গণতন্ত্র: কাদের প্রখ্যাত আলেম পীরজাদা গোলাম সারোয়ার সাঈদী আর নেই মানুষের কঙ্কালসহ গ্রেফতার বাপ্পী তিন দিনের রিমান্ডে শ্রাবন্তীকে কুপ্রস্তাবের অভিযোগে খুলনায় যুবক গ্রেফতার ডিসেম্বরের মাঝামাঝিতে বসবে পদ্মাসেতুর অবশিষ্ট ৪ স্প্যান: কাদের করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৩৬৪ ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন ২০২১ সালের মধ্যে ১২৯ নতুন ফায়ার স্টেশন: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এএসপি আনিসুল হত্যা মামলা: রিমান্ড শেষে কারাগারে আরও ৪ বিএনপির রাজনীতিতে হতাশা আর ব্যর্থতা ভর করেছে: কাদের শাহজালালে যাত্রীর কাছ থেকে ৫ কোটি টাকার স্বর্ণের বার উদ্ধার নেপালের বিপক্ষে সিরিজ জয় বাংলাদেশের বিএনপি বাসে আগুন দিয়ে অবলীলায় মিথ্যা বলছে: তথ্যমন্ত্রী ফাতেহা-ই-ইয়াজদাহম ২৭ নভেম্বর

দেশ দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে: নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২১ নভেম্বর ২০২০  

নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ বলেছেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার দেশের মানুষের যেকোনো বিপদে পাশে দাঁড়াচ্ছে। কারোনাকালেও তিন মাস মানুষের ঘরে খাবার পৌঁছে দেয়া হয়েছে। দেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির হার বৃদ্ধি পেয়েছে। বৈশ্বিক কঠিন সময়েও শেখ হাসিনার হাত ধরে দেশ দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে।

শনিবার দুপুরে দিনাজপুরের বিরল উপজেলা পরিষদ হলরুমে ক্ষুদ্র প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও রাসায়নিক সার বিতরণের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী বলেন, ১৯৭৫ সালের পরে প্রথমবারের মতো দেশে কৃষির জন্য ভর্তুকি দিয়েছিল শেখ হাসিনা সরকার। কিন্তু অনেক সরকার কখনো কৃষির জন্য ভর্তুকি দেয়নি।

খালিদ মাহমুদ বলেন, কৃষকদের ভর্তুকি দিতে শেখ হাসিনার সরকারকে বাঁধা দিয়েছিল বিশ্বব্যাংক। তখন শেখ হাসিনা বলেছিলেন, বিশ্বব্যাংকের কথায় বাংলাদেশ চলবে না। বাংলাদেশের মানুষের ভালোর জন্য যেভাবে চলা প্রয়োজন সেভাবেই সরকার চলবে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ৯৬ থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত আওয়ামী লীগের শাসনামলে কৃষকদের সার, বীজ, কীটনাশকের জন্য যুদ্ধ করতে হয়নি। কৃষি উপকরণের জন্য কৃষিপণ্য নষ্ট করতে হয়নি। কিন্তু ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত কৃষকরা সার পায়নি। ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগ পুনরায় ক্ষমতায় এসে বিএনপির বাড়ানো ২৪ টাকার সার ১৬ টাকায় নামানো হয়েছে।

বিরল ইউএনও সোয়াইব হোসেনের সভাপতিত্বে সার, বীজ বিতরণী অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন দিনাজপুরের অ্যাডিশনাল ডিসি (সার্বিক) মো. শরিফুল ইসলাম, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, বিরলের পৌর মেয়র সবুজার সিদ্দীক সাগর, বিরল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রমাকান্ড রায় প্রমুখ।