• বুধবার   ০৮ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২৪ ১৪২৬

  • || ১৪ শা'বান ১৪৪১

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
যারা সাহায্য চাইতে পারবে না তাদের তালিকা করতে বললেন প্রধানমন্ত্রী দেশে করোনায় আরও ৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত বেড়ে ১৬৪ কারাগারে বঙ্গবন্ধুর পলাতক খুনি ক্যাপ্টেন মাজেদ বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনি ক্যাপ্টেন মাজেদ আদালতে বঙ্গবন্ধু হত্যা: আত্মস্বীকৃত খুনি ক্যাপ্টেন মাজেদ গ্রেফতার চিকিৎসকরা কেন চিকিৎসা দেবে না, এটা খুব দুঃখজনক : প্রধানমন্ত্রী দীর্ঘদিন জেলখাটা আসামিদের মুক্তির নীতিমালা করার নির্দেশ রমজানে সরকারি অফিস ৯টা থেকে সাড়ে ৩টা প্রণোদনা প্যাকেজ বাস্তবায়ন হলে অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াবে: অর্থমন্ত্রী করোনা: ৭৩ হাজার কোটি টাকার আর্থিক সহায়তা প্যাকেজ ঘোষণা বেসরকারি হাসপাতাল চিকিৎসা না দিলেই ব্যবস্থা: স্বাস্থ্যমন্ত্রী প্রতি উপজেলা থেকে নমুনা সংগ্রহ করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর আজ থেকে কঠোর অবস্থানে যাচ্ছে সেনাবাহিনী মানুষের পাশে না দাঁড়িয়ে সমালোচনা করছে বিএনপি : কাদের দেশে আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত ২৬ জন সুস্থ : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সেনাবাহিনী কতদিন মাঠে থাকবে সরকার বিবেচনা করবে: সেনাপ্রধান করোনায় খাদ্য ঘাটতি হবে না : কৃষিমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সে বক্তব্য রাখ‌ছেন প্রধানমন্ত্রী আজ সকালে ৬৪ জেলার কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর কনফারেন্স পিপিই যেন নষ্ট না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী
৩০

বড় ক্ষতির ঝুঁকিতে বিশ্ব: এডিবি

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৮ মার্চ ২০২০  

করোনাভাইরাসের প্রভাবে চলতি বছর বৈশ্বিক উন্নয়ন ব্যাপকভাবে বাধাগ্রস্ত হতে পারে বলে জানিয়েছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি)। চীনের বাইরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের পরিস্থিতি দিন দিন খারাপের দিকে যাচ্ছে। এই ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে বিভিন্ন বহুজাতিক প্রতিষ্ঠান তাদের কারখানা বন্ধ রেখেছে। এ পরিস্থিতিতে নতুন সতর্কবার্তা দিল এডিবি। প্রতিষ্ঠানটি বলছে, এই ভাইরাসের সংক্রমণের কারণে বড় ক্ষতির ঝুঁকিতে রয়েছে বিশ্ব।

এডিবি বলেছে, বৈশ্বিক জিডিপি এ বছর শূন্য দশমিক ১ থেকে দশমিক ৪ শতাংশ পর্যন্ত কমতে পারে। এ ছাড়া আর্থিক ক্ষতি হতে পারে ৩৪ হাজার ৭০০ কোটি মার্কিন ডলার পর্যন্ত।

শনিবার এডিবি'র এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিভিন্ন খাতে প্রবাহিত দেশীয় অর্থনীতি, পর্যটন ও ভ্রমণ ব্যবসা, বাণিজ্য ও উৎপাদন ব্যবস্থাসহ স্বাস্থ্য সেবা খাত সমূহে মারাত্মক প্রভাব ফেলবে।

এডিবির বিশ্লেষণে বলা হয়েছে, করোনার প্রভাবে উন্নয়নশীল এশিয়ান অর্থনীতিগুলি বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবে। এই দেশগুলি তাদের মোট জিডিপির ০.১৭ থেকে ০.৪৬ শতাংশ হারাবে। দক্ষিণ এশিয়ার সাতটি দেশের মধ্যে ভারত সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

বর্তমান চিত্রের তথ্যমতে, জানুয়ারির শেষ দিক থেকে শুরু করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত দেশগুলোতে ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা দেয়া হচ্ছে। আর এই নিষেধাজ্ঞার পর ভ্রমণে স্থিতিশীলতা আসতে কমপক্ষে তিনমাস সময় লেগে যাবে। এতে বিশ্বব্যাপী ১৫৬ বিলিয়ন ডলার ক্ষতির সম্মুখীন হতে হবে যা মোট জিডিপি'র ০.২ শতাংশ।

গণপ্রজাতন্ত্রী চীন (পিআরসি) এরইমধ্যে তাদের অর্থনীতিতে ১০৩ বিলিয়ন ডলার অর্থাৎ ০.৮ শতাংশ লোকসানের কথা জানিয়েছে। এতে এশিয়ার অন্যান্য দেশগুলোতে ২২ বিলিয়ন ডলার অর্থাৎ ০.২ শতাংশ হারাবে।

এডিবির চিফ ইকোনমিস্ট ইয়েসুউকি সাওয়াদা বলেন, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে অর্থনীতিতে মারাত্মক প্রভাব পড়তে পারে। এটির জন্য প্রয়োজন সম্ভাব্য ক্ষতির একটি পরিষ্কার চিত্র তুলে ধরা। করোনাভাইরাস পরবর্তী প্রাদুর্ভাব মোকাবিলা করতে আমরা আশা করছি এই বিশ্লেষণ সরকারকে সাহায্য করবে। মানবিক ও অর্থনৈতিক প্রভাব প্রশমিত করতে সুস্পষ্ট সিদ্ধান্ত নিতেও সাহায্য করবে।

অর্থনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর