শুক্রবার   ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৮ ১৪২৬   ২৬ জমাদিউস সানি ১৪৪১

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
উন্নত দেশ গড়তে বেসরকারি সহযোগিতা প্রয়োজন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মুজিববর্ষে বিএনপিকেও আমন্ত্রণ জানানো হবে: কাদের ভণ্ডপীরসহ ৯ জনের কারাদণ্ড প্রধানমন্ত্রী সব সময় শিক্ষাকে গুরুত্ব দেন: পরিকল্পনামন্ত্রী মুজিব বর্ষে নতুন শিল্প কারখানা স্থাপন করা হবে: শিল্প প্রতিমন্ত্রী আসন্ন সেচ মৌসুমে লোডশেডিংয়ের শঙ্কা নেই : বিদ্যুৎ বিভাগ একুশে পদক হাতে তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস শুক্রবার একুশে পদক মেধা ও মনন চর্চার ক্ষেত্র সম্প্রসারিত করবে : রাষ্ট্রপতি এনামুল বাছিরের পদোন্নতির আবেদন হাইকোর্টে খারিজ সমৃদ্ধ দেশ গড়তে সুস্থ যুব সমাজের বিকল্প নেই : প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ ডাকঘর সঞ্চয়ের সুদহার পুনর্বিবেচনা করা হবে : অর্থমন্ত্রী মুঠোফোন প্রতারক জিনের বাদশা গ্রেফতার করোনাভাইরাস নিয়ে গুজবে কান দিবেন না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাগর তীরে উঁচু স্থাপনা নির্মাণ না করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর বিএনপি জ্বালাও-পোড়াও না করলে দেশ আরো এগিয়ে যেত : তথ্যমন্ত্রী শহীদ দিবসে জঙ্গি হামলার কোনো সম্ভাবনা নেই : ডিএমপি কমিশনার দেশে ব্রয়লারসহ কোন পশু-পাখির মধ্যে করোনা পাওয়া যায়নি : আইইডিসিআর বিশ্ববাসীর কাছে বাংলাদেশ এখন অনুকরণীয়: শ ম রেজাউল ওআইসিকে শক্তিশালী করতে চাই: ড. মোমেন
৯৭

২ হাজার সন্তান জন্ম দিয়ে অবসরে যাচ্ছে ‘লাভার বয়’ দিয়াগো

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ১২ জানুয়ারি ২০২০  

ইকুয়েডরের দ্য গালাপোগাস দ্বীপের বৃহৎ কচ্ছপগুলো প্রায় হারাতে বসেছিল। তাই বংশবিস্তারের জন্য এখানে আনা হয় ২টি পুরুষ ও ১২টি নারী কচ্ছপ। সান দিয়াগো চিড়িয়াখানা থেকে আসে পুরুষ কচ্ছপ দিয়াগো। এটিকে এখন দেওয়া হচ্ছে ‘প্লেবয়’ উপমা। খবর সিএনএনের।

দ্য গালাপোগাস পার্ক সার্ভিস কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ১৯৭৭ সালে এখানে আসার পর দিয়াগো একাই এত সন্তানের জন্ম দিয়েছে যে, সে তার প্রজাতি বিলুপ্তির হাত থেকে রক্ষা করেছে। এখন ২০০০ এর বেশি কচ্ছপ রয়েছে দ্বীপটিতে। বলা যায় এজন্য একাই সব অবদান ‘লিজেন্ড’ দিয়াগোর।

১০০ বছর বয়সী এই ‘লাভার বয়’ বংশবিস্তারের দায়িত্ব শেষ করেছে। তাকে এখন উন্মুক্ত স্থানে ছেড়ে দেওয়া হবে।

পার্কের ডিরেক্টর জর্জ ক্যারিয়ন জানান, বংশবিস্তারে কচ্ছপটির সিংহভাগ অংশীদারিত্ব রয়েছে। স্বাভাবিক জীবনে তাকে পাঠানো আনন্দের।

দ্য গালাপোগাস আইল্যান্ড বন্যপ্রাণী উপভোগের জন্য গুরুত্বপূর্ণ স্থান। থিওরি অব ইভল্যুশন নিয়ে কাজ করতে চার্লস ডারউইনও এখান এসেছিলেন।

এই বিভাগের আরো খবর