• বুধবার ১৯ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৫ ১৪৩১

  • || ১১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
শেখ হাসিনার ভারত সফর: আঞ্চলিক ভূ-রাজনীতি নিয়ে আলোচনা হতে পারে ফিলিস্তিনসহ দেশের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান আসুন ত্যাগের মহিমায় দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করি: প্রধানমন্ত্রী তারেকসহ পলাতক আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে কোরবানির পশু বেচাকেনা এবং ঘরমুখো মানুষের নিরাপত্তার নির্দেশ তিস্তা মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়নে চীনের কাছে ঋণ চেয়েছি গ্লোবাল ফান্ড, স্টপ টিবি পার্টনারশিপ শেখ হাসিনাকে বিশ্বনেতৃবৃন্দের জোটে চায় শিশুর যথাযথ বিকাশ নিশ্চিতে সকল খাতকে শিশুশ্রমমুক্ত করতে হবে শিশুশ্রম নিরসনে প্রত্যেককে আরো সচেতন হতে হবে : প্রধানমন্ত্রী ব্যবসায়িদের প্রতি নিয়ম নীতি মেনে কার্যক্রম পরিচালনার আহ্বান বিনামূল্যে সরকারি বাড়ি গৃহহীনদের আত্মমর্যাদা এনে দিয়েছে প্রধানমন্ত্রীর জিসিএ লোকাল অ্যাডাপটেশন চ্যাম্পিয়নস অ্যাওয়ার্ড গ্রহণ আশ্রয়ণের ঘর মানুষের জীবন বদলে দিয়েছে: প্রধানমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত ঘরবাড়ি তৈরি করে দেব : প্রধানমন্ত্রী নতুন সেনাপ্রধান ওয়াকার-উজ-জামান প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাচ্ছে সাড়ে ১৮ হাজার পরিবার শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস আজ শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন সোনিয়া গান্ধী মোদীকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানালেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শেখ হাসিনা-মোদি বৈঠকে দু’দেশের সম্পর্ক আগামীতে আরো দৃঢ় হবে

ভোলায় আরও পাঁচ কূপ খনন করবে বাপেক্স

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৬ মে ২০২৩  

ভোলায় প্রাকৃতিক গ্যাস নিয়ে বিপুল সম্ভাবনা দেখছে বাপেক্স। খুব শিগগির এ জেলায় আরও ৫টি নতুন কূপ খনন করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে তারা। এর মধ্যে শাহবাজপুর গ্যাস ক্ষেত্রে দুটি, ভোলা নর্থ ক্ষেত্রে দুটি এবং ইলিশায় একটি। তবে কবে নাগাদ এসব কূপ খনন হতে পারে, তা নিশ্চিত করে জানায়নি বাপেক্স।

বাপেক্সের ভূ-তাত্ত্বিক বিভাগের ব্যবস্থাপক মো. আলমগীর হোসেন বলেন, ভোলায় বিপুল পরিমাণ গ্যাসের সম্ভাবনা রয়েছে। এখন পর্যন্ত তিনটি গ্যাস ক্ষেত্রের সন্ধান মিলেছে। কূপ খনন করা হয়েছে ৯টি। শিগগির আরও ৫ কূপ খননের পরিকল্পনা করছে বাপেক্স। সে লক্ষ্যে জরিপের কাজ চলছে।

এদিকে একের পর এক গ্যাস ক্ষেত্র আবিষ্কৃত হওয়ায় অর্থনীতিতে নতুন সম্ভাবনা দেখছে ভোলার মানুষ। তারা বলছেন, এ গ্যাস কাজে লাগালে শিল্পকারখানা হবে দ্বীপজেলায়। আর এতেই কর্মসংস্থান হবে বেকারদের।

সূত্র জানিয়েছে, তিন হাজার ৪০৩ বর্গকিলোমিটার জেলা ভোলা। ১৯৯৫-৯৬ সালের দিকে জেলার বোরহানউদ্দিন উপজেলার শাহবাজপুরে প্রথম গ্যাস ক্ষেত্র আবিষ্কারের

পর নতুন করে সম্ভাবনার দ্বার খুলে এ জেলার। এরপর ভূ-তাত্ত্বিক জরিপে একের পর এক গ্যাসের সন্ধান পায় বাপেক্স।

সবশেষ ইলিশা-১ কূপে পরীক্ষামূলক গ্যাস উত্তোলনের পর সেখানেও ১৮০ থেকে ২০০ বিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস মজুদের সম্ভাবনা দেখছে বাপেক্স। এ নিয়ে জেলায় মোট গ্যাসের পরিমাণ দাঁড়াবে ১ দশমিক ৭ টিসিএফ ঘনফুট।

ভোলা স্বার্থরক্ষা কমিটির সদস্যসচিব আমিতাব অপু বলেন, ভোলায় একের পর এক গ্যাস আবিষ্কৃত হলেও জনগণ সে সুফল পাচ্ছে না। আমাদের দাবি, ভোলার গ্যাসকে কাজে লাগিয়ে শিল্পপ্রতিষ্ঠান এবং গৃহস্থালি কাজে ব্যবহার করা হোক। ভোলা-বরিশাল ব্রিজ করা হোক।

গ্যাস বাঁচাও আন্দোলন কমিটির সদস্য অবিনাশ নন্দী বলেন, আমরা চাই ভোলার গ্যাস ভোলাতে ব্যবহার হোক। জেলার চাহিদা মিটিয়ে অন্যস্থানে গেলে আমাদের আপত্তি নেই। তবে তার আগে অবশ্যই ভোলায় আবাসিক ও বাণিজ্যিকভাবে গ্যাস ব্যবহারের সুযোগ দিতে হবে।

ভোলা পৌর মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান বলেন, গৃহস্থালি কাজে গ্যাস সংযোগ দেওয়ার দাবিতে আগামী ১৩ মে ভোলা পৌর বাসিন্দাদের নিয়ে মানববন্ধন করা হবে। আমরা চাই ভোলার মানিষ গ্যাস ব্যবহারের সুযোগ করে দেওয়া হোক।

বাপেক্সের এমডি মো. আলী বলেন, খুব শিগগির ভোলাসহ দক্ষিণাঞ্চলের ১২ জেলায় তেল গ্যাস অনুসন্ধান করবে বাপেক্স। আশা করছি ভোলাসহ দক্ষিণাঞ্চলের জেলায় বিপুল পরিমাণ গ্যাসের মজুদ রয়েছে।

ভোলায় বর্তমানে ৫টি কূপ থেকে প্রতিদিন ৮০ থেকে ৮৫ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস উত্তোলন হচ্ছে, যা ব্যবহৃত হচ্ছে তিনটি বিদ্যুৎকেন্দ্রে। বাকি চার কূপ অব্যবহৃত থাকছে।