• রোববার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৩ ১৪২৮

  • || ১০ সফর ১৪৪৩

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
বঙ্গবন্ধু ভাষণের দিনকে এবারও ‘বাংলাদেশি ইমিগ্রান্ট ডে’ ঘোষণা ফিনল্যান্ডে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী শীর্ষ অর্থনীতির দেশগুলোর অংশগ্রহণ চান প্রধানমন্ত্রী `লাশের নামে একটা বাক্সো সাজিয়ে-গুজিয়ে আনা হয়েছিল` টকশোতে কে কী বলল ওসব নিয়ে দেশ পরিচালনা করি না: প্রধানমন্ত্রী উপহারের ঘরে দুর্নীতি তদন্তে দুদককে নির্দেশ দিলেন প্রধানমন্ত্রী জিয়াকে আসামি করতে চেয়েছিলাম: প্রধানমন্ত্রী এটা তো দুর্নীতির জন্য হয়নি, এটা কারা করল? ওজোন স্তর রক্ষায় সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি খাতকেও এগিয়ে আসতে হবে ওজোন স্তর রক্ষায় সিএফসি গ্যাসনির্ভর যন্ত্রের ব্যবহার কমাতে হবে ১২ বছরের শিক্ষার্থীরা টিকার আওতায় আসছে: সংসদে প্রধানমন্ত্রী ২৪ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘে ভাষণ দিবেন প্রধানমন্ত্রী প্রতিদিন প্রতি মুহূর্তে শোক প্রস্তাব নিতে চাই না: প্রধানমন্ত্রী এই সংসদে একের পর এক সদস্য হারাচ্ছি: প্রধানমন্ত্রী সবাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে শিক্ষার রূপরেখা সাজানোর নির্দেশ শিক্ষা কার্যক্রমকে সময়োপযোগী করা অপরিহার্য: প্রধানমন্ত্রী আগেরবার সব ভালো কাজের জন্য মামলা খেয়েছিলাম: প্রধানমন্ত্রী উৎপাদন খরচ অনেক, বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হোন: প্রধানমন্ত্রী আমাদের লক্ষ্য প্রতিটি ঘরে আলো জ্বলবে: প্রধানমন্ত্রী

তোফায়েল দাঁড়ালেন এসিডদগ্ধ অসহায় মেয়েটির পাশে

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৪ জুলাই ২০২১  

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ হবিগঞ্জের এসিডদগ্ধ অসহায় সীমার পাশে দাঁড়িয়েছেন। ইতোমধ্যে তার হাতে এক লাখ টাকা তুলে দিয়েছেন তিনি।

জানা যায়, খুব অল্প বয়সে বাবার ছোড়া এসিডে দগ্ধ হন সীমা। এতে তার মুখমন্ডল বিকৃত হয়ে যায়। ২০১০ সালে সীমার যখন স্কুলে ভর্তি হওয়ার বয়স হয়, তখন কোনো প্রতিষ্ঠান প্রথমে তাকে ভর্তি নিতে রাজি হয়নি। এ বিষয়ে একটি বেসরকারি টেলিভিশনে তাকে নিয়ে প্রতিবেদন সম্প্রচার করে। এরপর অনেকের আর্থিক সহায়তায় সীমার পড়াশোনা শুরু হয়। তবে মহামারি করোনার প্রকোপে তার পড়াশোনা আবারও হুমকির মুখে পড়ে। 

এবারও সীমার বিষয়টি নিয়ে ওই বেসরকারি টেলিভিশনে প্রতিবেদন সম্প্রচারিত হয়। এবার সীমার আর্থিক অসঙ্গতি ও অসহায়ত্বের বিষয়টি নজরে আসে বরেণ্য রাজনীতিবিদ ও সংসদ সদস্য তোফায়েল আহমেদের। এরপর তিনি তার প্রতিষ্ঠিত তোফায়েল আহমেদ ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে সীমাকে সহায়তা করার মনস্থির করেন।

সেই মোতাবেক সীমাসহ তার পরিবারকে রাজধানী ঢাকায় অবস্থিত নিজ বাসভবনে ডেকে পাঠান তোফায়েল আহমেদ। তারপর সীমার হাতে এক লাখ টাকা তুলে দেন। পাশাপাশি তোফায়েল আহমেদ জানান, প্রতিমাসে তার প্রতিষ্ঠিত ফাউন্ডেশন থেকে সীমাকে পাঁচ হাজার টাকা প্রদান করা হবে। যাতে সীমার পড়ালেখার খরচ চালিয়ে যেতে পারে।

তিনি আরও জানান, উচ্চ শিক্ষা বা সীমা যে পর্যন্ত লেখাপড়া করতে চান সেই পর্যন্ত সীমাকে আর্থিক সহায়তা করা হবে। 

এদিকে, আর্থিক সহায়তা পাওয়ার পরে সীমা বলেন, তিনি ভবিষ্যতে চিকিৎসক হতে চান। যাতে সহজেই সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারেন।