• শুক্রবার   ১৯ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ৩ ১৪২৯

  • || ২০ মুহররম ১৪৪৪

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন জাতিসংঘ মানবাধিকার প্রধান বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর আ. লীগের নেতারা কী করেছিলেন: প্রধানমন্ত্রী সুশীল বাবু মইনুল খুনিদের নিয়ে দল গঠন করে: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িতরা আজ মানবাধিকারের কথা বলে: প্রধানমন্ত্রী ভারত পারলে আমরাও রাশিয়া থেকে তেল কিনতে পারবো: প্রধানমন্ত্রী ‘ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচারের রায় কার্যকর করেছি’ খবরদার আন্দোলনকারীদের ডিস্টার্ব করবেন না: প্রধানমন্ত্রী জাতির পিতার মৃত্যু নেই প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে বঙ্গবন্ধু আমাদের রোল মডেল শোক দিবসে বঙ্গভবনে বিশেষ দোয়ার আয়োজন রাষ্ট্রপতির টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা জ্বালানি তেলের দাম বাড়ানোর বিষয়ে পরিষ্কার ব্যাখ্যার নির্দেশ বঙ্গবন্ধু মেমোরিয়াল ট্রাস্টের সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত মানবাধিকার কমিশনকে যথাযথভাবে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ রাষ্ট্রপতির ৪০০তম ওয়ানডে খেলার অপেক্ষায় বাংলাদেশ জ্বালানি নিরাপত্তা: বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার অবদান রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে বঙ্গমাতার মনোভাব প্রতিফলিত হয়েছে বঙ্গমাতার সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা স্বাধীনতার সংগ্রামে বঙ্গবন্ধুর সারথি ছিলেন আমার মা: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গমাতা কঠিন দিনগুলোতে ছিলেন দৃঢ় ও অবিচল: রাষ্ট্রপতি

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়ায় ফেরি চলাচল স্বাভাবিক, ঘাটে দীর্ঘ জট

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ১৩ জানুয়ারি ২০২২  

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল দফায় দফায় বন্ধ হওয়ার সাড়ে তিন ঘণ্টা পর স্বাভাবিক হলেও ঘাট এলাকায় রয়েছে দীর্ঘ যানজট। এতে করে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন চালক ও যাত্রীরা। 

ঘাট পুলিশ বলছে, যানজট নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে পুলিশ। এদিকে ঘন কুয়াশায় চলতে গিয়ে আটকা পড়া ফেরি ভাষা শহীদ বরকত তিন ঘণ্টা পর উদ্ধার হয়েছে।

ঘাট কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ভোর রাত ৫টার থেকে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল কুয়াশার কারণে বিঘ্নিত হচ্ছিল। ভোর ৬টার দিকে কুয়াশার মাত্রা তীব্র আকার ধারণ করলে চ্যানেলের বিকন বাতি এবং মার্কিং পয়েন্টের কিছুই দেখা যাচ্ছিল না। এ সময় দুঘর্টনা এড়াতে ফেরি চলাচল সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেওয়া হয়।

আবার সকাল ৭টার দিকে কুয়াশার মাত্রা কমে আসলে ফেরি চলাচল শুরু হয়। পরে সকাল ৮টায় কুয়াশার মাত্রা বেড়ে ফেরি চলাচল বন্ধ হয়েছে যায়। এতে কুয়াশার মধ্যে চলতে গিয়ে ভাষা শহীদ বরকত নামের একটি রো রো ফেরি ছোট-বড় ২২টি যানবাহন এবং শতাধিক যাত্রী নিযে মাঝ নদীতে ডুবো চরে আটকে পড়ে। ৩ ঘণ্টা পর ট্রাকবোর্ড ৩৮৯ দিয়ে উদ্ধার করা হয় ফেরিটি।

পরে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক হয়। তবে উভয় ঘাট এলাকায় সহস্রাধিক যানবাহন পরের অপেক্ষায় রয়েছে। আর দুর্ভোগে পড়েছেন হাজারো যাত্রী, চালক, শ্রমিক এবং ব্যবসায়ীরা।

ঘাটের সার্জেন্স মো. রাকিব হোসেন জানান, ঘাট এলাকার শত শত যানবাহন নিয়ন্ত্রণসহ মলমপাটি, ছিনতাইসহ অনিয়ম রক্ষায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে ছোট-বড় ১৬টি ফেরি রয়েছে। তার মধ্যে ৯টি বড় এবং ৭টি ছোট ফেরি।