• বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ৮ ১৪৩০

  • || ১০ শা'বান ১৪৪৫

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
অশিক্ষার অন্ধকারে কেউ থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী একুশ মাথা নত না করতে শেখায়: প্রধানমন্ত্রী একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আগামীকাল মিউনিখ সম্মেলনে শেখ হাসিনাকে নিমন্ত্রণ বাংলাদেশের গুরুত্ব বুঝায় গুণীজনদের সম্মাননা ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে অনুপ্রাণিত করবে : রাষ্ট্রপতি একুশে পদকপ্রাপ্তদের অনুসরণ করে তরুণরা সোনার বাংলা বিনির্মাণ করবে আজ একুশে পদক তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে যোগদান শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী মিউনিখ সফর শেষে ঢাকার পথে প্রধানমন্ত্রী বরই খেয়ে দুই শিশুর মৃত্যু, কারণ অনুসন্ধান করবে আইইডিসিআর দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের উপযুক্ত জবাব দিন: প্রধানমন্ত্রী গাজায় যা ঘটছে তা গণহত্যা: শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাক্ষাৎ নেদারল্যান্ডস, যুক্তরাজ্য, আজারবাইজান থেকে বড় বিনিয়োগ আহ্বান জার্মান চ্যান্সেলরের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক শান্তি ফর্মুলা বাস্তবায়নে শেখ হাসিনার সহযোগিতা চাইলেন জেলেনস্কি কাতারের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেছেন শেখ হাসিনা কিছু খুচরো দল তিড়িং বিড়িং করে লাফাচ্ছে: শেখ হাসিনা মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীকে বিশ্বনেতাদের অভিনন্দন

কয়লা নিয়ে মোংলায় এলো বাণিজ্যিক জাহাজ ‘এমভি আরভিকা’

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২৯ নভেম্বর ২০২৩  

রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের জ্বালানি কয়লা নিয়ে বিদেশ থেকে এবার সরাসরি মোংলা বন্দরের নোঙর করেছে লাইব্রেরিয়ান পতাকাবাহী ‘এমভি আরভিকা’ নামের বাণিজ্যিক জাহাজ।

বুধবার (২৯ নভেম্বর) ভোরে হারবাড়িয়া ১৪ নম্বর এ্যাংকারেজ বয়ায় জাহাজটি ভিড়েছে বলে জানায় স্থানীয় শিপিং এজেন্ট কর্তৃপক্ষ। এবারের চালানে আনা হয়েছে ৫৪ হাজার ৩০০ মেট্রিক টন কয়লা, যার সম্পূর্ণটাই খালাস করা হবে মোংলা সমুদ্র বন্দরে।

জাহাজটির মেসার্স টগি শিপিং এজেন্ট কর্তৃপক্ষ জানায়, বুধবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের জ্বালানি কয়লা নিয়ে বিদেশ থেকে সরাসরি মোংলা বন্দরের ১৪ নম্বর এ্যাংকারেজ বয়ায় নোঙর করেছে ‘এমভি আরভিকা’ নামের বিদেশি বাণিজ্যিক জাহাজ। ইন্দোনেশিয়া থেকে আনা এবারের চালানে মোট ৫৪ হাজার ৩০০ মেট্রিক টন জ্বালানি কয়লা রয়েছে।

গত ১৮ নভেম্বর জাহাজটি ইন্দোনেশিয়ার ‘মোয়ারা পান্থাই’ বন্দর থেকে কয়লা বোঝাই করে বাংলাদেশের মোংলা বন্দরের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে। জাহাজটি ইন্দোনেশিয়া থেকে সাগর পথ পাড়ি দিয়ে মোংলা বন্দরে পৌঁছাতে ১২ দিন সময় লেগেছে। বুধবার ভোর রাতে সরাসরি বন্দরের হারবাড়িয়ার ১৪ নম্বর এ্যাঙ্কারেজ বয়ায় এসে ভিড়েছে।

বুধবার দুপুরের পালা থেকে কয়লা খালাস শুরু করেছে কয়লা খালাসকারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স এম এ হাসেম এন্ড সন্স লিমিটেডের প্রতিনিধিরা। মোংলা বন্দরে ৫৪ হাজার ৩০০ মেট্রিক টন কয়লা খালাস করতে ৬/৭ দিন সময় লাগবে বলে জানায় এ জাহাজটির স্থানীয় শিপিং এজেন্ট ‘টগি শিপিং অ্যান্ড লজিস্টিক লিমিটেড’ কর্তৃপক্ষ।

মোংলা বন্দরের হারবাড়িয়ার ১৪ নম্বর বয়া থেকে খালাস করা কয়লা কার্গো ও লাইটার জাহাজ বোঝাই করে সেগুলো নেয়া হবে রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের জেটিতে। তবে মোংলা বন্দরের মূল চ্যানেলে চলমান ইনার বার ড্রেজিং সম্পন্ন হলে সরাসরি রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে পৌঁছালে সময় ও অর্থ দুটোই সাশ্রয় হবে আমদানিকারক ব্যবসায়ীদের।

মোংলা কাস্টমস কর্তৃপক্ষের সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা সাজন মাহমুদ জানায়, জাহাজটির সকল কাগজপত্র দেখে কয়লা খালাস কাজ শুরু করেছে কয়লা খালাসকারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স এম এ হাসেম এন্ড সন্স এর প্রতিনিধিরা। কয়লা খালাস করে তা নেয়া হবে রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে। এছাড়া মোংলা বন্দরকে সর্বাধিক উন্নয়নে কাজ করছে ব্যবসায়ীসহ এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সকলেই।

বর্তমানে রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের দুটি ইউনিট চলমান রয়েছে। এটি ২৪ ঘণ্টা চালু রাখতে সাড়ে পাঁচ থেকে ছয় হাজার মেট্রিক টন জ্বালানি কয়লার প্রয়োজন, এতে উৎপাদন হবে এক হাজার ৩২০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ।