• শনিবার ২৫ মে ২০২৪ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪৩১

  • || ১৬ জ্বিলকদ ১৪৪৫

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
কৃষিতে ফলন বাড়াতে অস্ট্রেলিয়ার প্রযুক্তি সহায়তা চান প্রধানমন্ত্রী বাজার মনিটরিংয়ে জোর দেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ‘বঙ্গবন্ধু শান্তি পদক’ দেবে বাংলাদেশ ইরানের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক রাইসি-আমির আব্দুল্লাহিয়ান মারা গেছেন: ইরানি সংবাদমাধ্যম সকল ক্ষেত্রে সঠিক পরিমাপ নিশ্চিত করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির ওজন ও পরিমাপ নিশ্চিতে কাজ করছে বিএসটিআই: প্রধানমন্ত্রী চাকরির পেছনে না ছুটে যুবকদের উদ্যোক্তা হওয়ার আহ্বান ‘সামান্য কেমিক্যালের পয়সা বাঁচাতে দেশের সর্বনাশ করবেন না’ ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে আওয়ামী লীগ দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আগামীকাল ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে বিচারকদের প্রতি আহ্বান রাষ্ট্রপতির আহতদের চিকিৎসায় আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর ভূমিকা চান প্রধানমন্ত্রী টেকসই উন্নয়নের জন্য কার্যকর জনসংখ্যা ব্যবস্থাপনা চান প্রধানমন্ত্রী বিএনপি ক্ষমতায় এসে সব কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ করে দেয় চমক রেখে বিশ্বকাপের দল ঘোষণা করল বাংলাদেশ শেখ হাসিনার তিন গুরুত্বপূর্ণ সফর: প্রস্তুতি নিচ্ছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় হজযাত্রীদের ভিসা অনুমোদনের সময় বাড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশ এআইকে স্বাগত জানায় তবে অপব্যবহার রোধে পদক্ষেপ নিতে হবে

ফোন পেয়ে অসহায় পরিবারের পাশে দাড়াঁলো ইউএনও

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৫ এপ্রিল ২০২০  

ভোলা প্রতিনিধিঃ ফোন পেয়ে করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে পড়া অসহায় মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে  ভোলা সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মো: মিজানুর রহমান। রবিবার দুপুরে  ভোলা সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের নবীপুর এলকার অর্ধশতাধিক খেটে খাওয়া শ্রমিক,অসহায় দরিদ্র্য  গরীব লোকদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে  খাদ্য সামগ্রী পৌছে দিলেন ইউএনও। করোনা আতঙ্কে বাড়ী থেকে বের হতে পারছেন না খেটে খাওয়া দিনমজুররা। বাড়ীর বাইরে যেতে না পারায় তাদের দিন কাটছে অনাহারে। তাই  গাড়ীতে করে চাল, ডাল,আলু,সাবানসহ নিত্যপন্য খাবার সামগ্রী  পৌছে দিচ্ছেন উপজেলার বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় খেটে খাওয়া দিনমজুরদের বাড়ী বাড়ী গিয়ে খাদ্যসামগ্রী তুলে দিচ্ছেন অসহায় পরিবারের হাতে। খাবার পেয়ে আনন্দে চোখের পানি ঝড়িয়েছেন অনেকের।

ভোলা সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মো: মিজানুর রহমান জানায়, আমরা দিন-রাত চেষ্টা করছি প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ সামগ্রী অসহায় মানুষের হাতে তুলে দেয়ার। যাতে নিম্ন মধ্যবিত্ত মানুষ ত্রাণ পায় । এ জন্য আমি নিজে চেষ্টা করি সরাসরি ত্রাণ বিতরণে অংশগ্রহন  করার। এতে করে প্রকৃত অসহায়রা সরকারের খাদ্য সামগ্রী পাচ্ছেন। এ জন্য আমি প্রতিদিন খেটে খাওয়া মানুষের জন্য ত্রাণ নিয়ে বের হই। অপর দিকে খাদ্য সামগ্রী নিতে ঝুঁকি নিয়ে কাউকে ঘর থেকে বের হতে হচ্ছেনা। এ ভাবে পর্যায়ক্রমে  উপজেলার সকল ইউনিয়নে কর্মহীন দরিদ্র অসহায়দের মাঝে খাদ্য পৌছে দেয়ার চেষ্টা করছি। উল্লেখ্য, জেলা প্রশাসক এর নিদের্শ ক্রমে এর আগে ভোলা বাসটার্মিনালে প্রায় দেড়শ পরিবহন শ্রমিকদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়।