• বৃহস্পতিবার   ০৯ ডিসেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ২৫ ১৪২৮

  • || ০৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
আইন করলে হবে না, মানসিকতাও বদলাতে হবে: প্রধানমন্ত্রী নারীর প্রতি দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর তরুণ প্রজন্মকে প্রস্তুত করার ওপর গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রীর বেগম রোকেয়া ছিলেন দূরদৃষ্টিসম্পন্ন আধুনিক নারী রোকেয়া শুধু নারী শিক্ষার অগ্রদূত না, বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী খালেদা জিয়াকে যথেষ্ট উদারতা দেখিয়েছি: প্রধানমন্ত্রী ফোর্বসের ১০০ ক্ষমতাধর নারীর তালিকায় শেখ হাসিনা নেপাল ও ভুটানে জলবিদ্যুৎ উৎপাদন করে উপকৃত হবে ঢাকা-দিল্লী মালিক ও শ্রমিকের মধ্যে সুসম্পর্ক থাকতে হবে : প্রধানমন্ত্রী শ্রমজীবী মহিলা হোস্টেলসহ ৮ স্থাপনার উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড দিলেন প্রধানমন্ত্রী করোনার প্রভাব মোকাবিলায় ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা দরকার- প্রধানমন্ত্রীর মেঘনা নামে কুমিল্লা ও পদ্মা নামে ফরিদপুর বিভাগ হবে: প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ-ভারতের সম্পর্ক আরো দৃঢ় করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বিশ্ব শান্তি সম্মেলনে ‘ঢাকা শান্তি ঘোষণা’ গৃহীত শান্তিপূর্ণ বিশ্ব গড়তে সম্পদ ব্যবহার করুন: প্রধানমন্ত্রী ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প গড়ে তোলার তাগিদ প্রধানমন্ত্রীর যুবকদের উদ্যোক্তা হওয়ার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর দেশবাসীকে শপথ করানোর প্রস্তুতি নিতে নির্দেশনা উপকূলীয় এলাকার ৫৩ শতাংশ জমি সরাসরি লবণাক্ততায় আক্রান্ত

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরায় ভোলায় ১২ জেলে আটক

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ১৯ অক্টোবর ২০২১  

ভোলা প্রতিনিধিঃ ভোলায় সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মা ইলিশ ধরায় ১২ জেলেকে আটক করেছে মৎস্য বিভাগ। তাদের ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে বিভিন্ন হারে জরিমানা করা হয়েছে। সোমবার(১৮ অক্টোবর) সকাল থেকে বিকাল ৫ টা পর্যন্ত ভোলা সদর উপজেলার মেঘনা-তেতুলিয়া  নদীতে মাছ ধরার সময় উপজেলা মৎস্য বিভাগ তাদের আটক করে। আটককৃতরা হলেন,মো.কবির মোল্লা, আল-আমীন,মো.আকতার,মো.ইব্রাহিম,মো.লোকমান, মো. দেলোয়ার, মো.সুৃমন, মো.রাজিব, মো.রিয়াজ, মো.আল-আমীন, মো.নিয়াজ, মো.আলামীন।

সদর উপজেলা মৎস্য অফিস সূত্রে জানা যায়, সোমবার (১৮ অক্টোবর) সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত সদর উপজেলার মেঘনা ও তেতুলিয়া নদীতে অভিযান পরিচালনা করে উপজেলা মৎস্য বিভাগ তাদের আটক করে। এ সময় তাদের কাছে সাড়ে ৫ হাজার মিটার অবৈধ জাল, ১৫ কেজি ইলিশ মাছ জব্দ করে।

এ সময় সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. মিজানুর রহমান ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে আটক  জেলেদের বিভিন্ন হারে জরিমানা করেন।  এবং মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। এবং জব্দকৃত জাল ভ্রাম্যমাণ আদালতের উপস্থিতে পুড়িয়ে ফেলা হয়। জব্দকৃত ইলিশ স্থানীয় এতিম ও গরিবদের মাঝে বিতরণ করা হয়ে।

এ সময় সদর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. জামাল হোসাইন জানান, নদীতে মাছ শিকারের উপর সরকারের নিষেধাজ্ঞা জারির পরপরই জেলা মৎস্য বিভাগের নির্দেশক্রমে আমরা  উপজেলা মৎস্য বিভাগ উপজেলা প্রশাসনের সমন্বয়ে ভোলার মেঘনা তেতুলিয়া অভিযান পরিচালনা করে আসছি। তারি ধারাবাহিকতায় আজ মেঘনা নদী থেকে ৬ জন ও তেতুলিয়া নদী থেকে ৬ জন জেলেকে মাছ ও জাল সহ আটক করা হয়েছে। তাদেরকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে জরিমানা করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, নিষেধাজ্ঞা চলাকালীন সময়ে আমাদের এই অভিযান চলমান থাকবে।আগামীতে কেউ এরকম অপরাধ করলে তাদের শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে। কোনভাবেই অপরাধীকে ছাড় দেওয়া হবে না। আমরা যদি মা ইলিশ রক্ষা করতে পারি, তবে সারা বছর ইলিশ খেতে পারবো তাই এই অভিযানকে বাস্তবায়ন করতে আমাদের সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।