• বুধবার ২৪ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৯ ১৪৩১

  • || ১৬ মুহররম ১৪৪৬

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে ২১ জুলাই স্পেন যাবেন প্রধানমন্ত্রী আমার বিশ্বাস শিক্ষার্থীরা আদালতে ন্যায়বিচারই পাবে: প্রধানমন্ত্রী কোটা সংস্কার আন্দোলনে প্রাণহানি ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত করা হবে মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দেখাতে হবে : প্রধানমন্ত্রী পবিত্র আশুরা মুসলিম উম্মার জন্য তাৎপর্যময় ও শোকের দিন আশুরার মর্মবাণী ধারণ করে সমাজে সত্য ও ন্যায় প্রতিষ্ঠার আহ্বান মুসলিম সম্প্রদায়ের উচিত গাজায় গণহত্যার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হওয়া নিজেদের রাজাকার বলতে তাদের লজ্জাও করে না : প্রধানমন্ত্রী দুঃখ লাগছে, রোকেয়া হলের ছাত্রীরাও বলে তারা রাজাকার শেখ হাসিনার কারাবন্দি দিবস আজ ‘চীন কিছু দেয়নি, ভারতের সঙ্গে গোলামি চুক্তি’ বলা মানসিক অসুস্থতা দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করে না দেশের অর্থনীতি এখন যথেষ্ট শক্তিশালী : প্রধানমন্ত্রী আওয়ামী লীগ সরকার ব্যবসাবান্ধব সরকার ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার যথাযথ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বিশ্বমানের খেলোয়াড় তৈরি করুন চীন সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে আসছেন প্রধানমন্ত্রী টেকসই উন্নয়নে পরিকল্পিত ও দক্ষ জনসংখ্যার গুরুত্ব অপরিসীম বাংলাদেশে আরো বিনিয়োগ করতে চায় চীন: শি জিনপিং চীন সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী

চরফ্যাশনে ফিরেছে ঘূর্ণিঝড়ে ভারতে আটকা ১৫ জেলে

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৩০ এপ্রিল ২০২৩  

সাড়ে ৬ মাস আগে বঙ্গোপসাগরে ঘূর্ণিঝড় সিংড়ার কবলে পড়ে ট্রলার ডুবিতে ভারতে আটকা পড়ে ১৫ জেলে। তাদের দেশে হস্তান্তর করেছে ভারতীয় পুলিশ। শুক্রবার (২৮ এপ্রিল) সন্ধ্যায় তাদের হস্তান্তর করা হয়।

শনিবার (২৯ এপ্রিল) জেলেদের সঙ্গে নিয়ে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে এক সংবাদ সম্মেলন করেছে ছাবেরা ফাউন্ডেশন। এর প্রতিষ্ঠাতা এবং অফিসার্স ক্লাব ঢাকার সাবেক সচিব ও সাধারণ সম্পাদক মেজবাহ উদ্দিন এসময় লিখত বক্তব্য পাঠ করেন।

তিনি বলেন, উদ্ধার হওয়া জেলেরা ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার নুরাবাদ আহমেদপুর, চরকলমী ও আবদুল্লাহপুর ইউনিয়নের। ১৫ জেলে ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের কবলে পড়ে বঙ্গোপসাগরে গভীর সমুদ্রে মাছ ধরার ট্রলার ডুবিতে গত ২৫ অক্টোবর নিখোঁজ হয়। ১৫টি পরিবার তাদের স্বজনদের হারিয়ে শোকের সাগরে ভাসতে থাকে।

নিখোঁজ জেলেরা ভারতে সীমান্তে পৌঁছালে ভারতের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তাদের জেলখানায় পাঠায়। একটি নির্ভরযোগ্য সংবাদের ভিত্তিতে বাংলাদেশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও ভারত বাংলাদেশ হাইকমিশনের সহযোগিতায় তাদের ভারতের জেলখানা থেকে বাংলাদেশে নিয়ে আসার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

তাদের অসহায় পরিবারের কথা চিন্তা করে দুই দেশের ঊর্ধতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করে ভারত সরকার, বাংলাদেশ সরকারের কাছে তাদের হস্তান্তর করে।

তিনি বলেন, ১৫ জেলে উদ্ধারের ফলে ১৫টি পরিবার ফিরে পেলো বেঁচে থাকার স্বপ্ন। আমার মায়ের নামে প্রতিষ্ঠিত ছাবেরা ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় তাদের ভোলা জেলার চরফ্যাশনে পাঠানোর জন্য আর্থিকভাবে সহযোগিতা করা হয়।