• বুধবার ২৪ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৯ ১৪৩১

  • || ১৬ মুহররম ১৪৪৬

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে ২১ জুলাই স্পেন যাবেন প্রধানমন্ত্রী আমার বিশ্বাস শিক্ষার্থীরা আদালতে ন্যায়বিচারই পাবে: প্রধানমন্ত্রী কোটা সংস্কার আন্দোলনে প্রাণহানি ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত করা হবে মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দেখাতে হবে : প্রধানমন্ত্রী পবিত্র আশুরা মুসলিম উম্মার জন্য তাৎপর্যময় ও শোকের দিন আশুরার মর্মবাণী ধারণ করে সমাজে সত্য ও ন্যায় প্রতিষ্ঠার আহ্বান মুসলিম সম্প্রদায়ের উচিত গাজায় গণহত্যার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হওয়া নিজেদের রাজাকার বলতে তাদের লজ্জাও করে না : প্রধানমন্ত্রী দুঃখ লাগছে, রোকেয়া হলের ছাত্রীরাও বলে তারা রাজাকার শেখ হাসিনার কারাবন্দি দিবস আজ ‘চীন কিছু দেয়নি, ভারতের সঙ্গে গোলামি চুক্তি’ বলা মানসিক অসুস্থতা দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করে না দেশের অর্থনীতি এখন যথেষ্ট শক্তিশালী : প্রধানমন্ত্রী আওয়ামী লীগ সরকার ব্যবসাবান্ধব সরকার ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার যথাযথ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বিশ্বমানের খেলোয়াড় তৈরি করুন চীন সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে আসছেন প্রধানমন্ত্রী টেকসই উন্নয়নে পরিকল্পিত ও দক্ষ জনসংখ্যার গুরুত্ব অপরিসীম বাংলাদেশে আরো বিনিয়োগ করতে চায় চীন: শি জিনপিং চীন সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী

আবারও হরতাল-সহিংসতায় ফিরল বিএনপি

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২৮ অক্টোবর ২০২৩  

রাজপথে সহিংসতা নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে হরতাল-অবরোধের মতো সহিংস কর্মসূচি থেকে দীর্ঘদিন বিরত থাকলেও আবারও সেই পথে ফিরল বিএনপি। রোববার (২৯ অক্টোবর) সারা দেশে সকাল-সন্ধ্যা হরতালের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে দলটি। শনিবার রাজধানীতে মহাসমাবেশের মধ্যেই এ ঘোষণা দিলেন দলের শীর্ষ নেতারা।

বিএনপির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, নয়াপল্টনে বিএনপির শান্তিপূর্ণ মহাসমাবেশে পুলিশের হামলার প্রতিবাদে এ হরতাল দিয়েছেন তারা।

২০১৪ সালের জাতীয় নির্বাচনের আগে-পরে হরতাল-অবরোধের মতো কর্মসূচি দিয়ে দেশজুড়ে ব্যাপক সহিংসতা চালিয়েছিল বিএনপি। এতে জনগণের জীবনে অচলাবস্থা সৃষ্টি হয়েছিল। কিন্তু তাদের সেই আন্দোলন সফলতার মুখ দেখেনি।
 
শনিবার পছন্দের ভেন্যু নয়াপল্টনেই সমাবেশের অনুমতি পায় বিএনপি। তাদের ঘোষণা ছিল, শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করবেন। এদিন লোক সমাগম হওয়ার কথা ছিল দুপুর দুইটা থেকে। কিন্তু নির্ধারিত সময়ের অনেক আগে থেকেই বিভিন্ন প্রান্ত থেকে সমাবেশস্থলে আসতে থাকেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। একপর্যায়ে কাকরাইল মোড়ে তারা গাড়ি ভাঙচুর শুরু করেন।
 
বাস, পিকআপসহ বেশ কয়েকটি গাড়িতে ভাঙচুর চালান নেতাকর্মীরা। এতে কাকরাইল এলাকা পরিণত হয় রণক্ষেত্রে। ব্যাপক ভাঙচুর ও আগুন জ্বালানোর ঘটনা ঘটে। আগুন দেয়া হয় পুলিশ বক্সে। এমনকি এ সময় প্রধান বিচারপতির বাসভবনে ঢিল ছুঁড়তে দেখা যায় বিএনপি নেতাকর্মীদের।
 
এছাড়া বিএনপি নেতাকর্মীদের হামলায় বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। পুলিশের একজন এসআইকে গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।
 
পুলিশ জানিয়েছে, রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালে ২২ জন এবং ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১৯ জন আহত পুলিশ সদস্য চিকিৎসাধীন। বিএনপি-জামায়াতের নেতাকর্মীরা রাজারবাগে পুলিশ হাসপাতালেও আগুন দিয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে।