• শুক্রবার   ০৭ অক্টোবর ২০২২ ||

  • আশ্বিন ২২ ১৪২৯

  • || ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
দেশের বিভিন্ন জেলায় বিদ্যুৎ বিপর্যয় ঢাকেশ্বরী মন্দিরে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন প্রধানমন্ত্রী কন্যাশিশুর নিরাপত্তা নিশ্চিত করা আমাদের কর্তব্য: রাষ্ট্রপতি সমৃদ্ধ দেশ গড়তে কন্যাশিশুদের নিরাপত্তা অপরিহার্য: প্রধানমন্ত্রী দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী দেশে ফেরার পথে লন্ডনে প্রধানমন্ত্রীর যাত্রা বিরতি কৃষিতে বাংলাদেশের সাফল্যের সূচনা বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্ব: রাষ্ট্রপতি সোনার বাংলা গড়তে কৃষিকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী ‘শিশুদের শারীরিক-মানসিক বিকাশে সুস্থ বিনোদনের বিকল্প নেই’ ‘মুজিববর্ষে ১ লাখ ৮৫ হাজার ১২৯টি ঘর নির্মাণ করে দেয়া হয়েছে’ শিশুদের বুকে বড় হওয়ার স্বপ্ন জাগিয়ে দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী আগামী প্রজন্মের জন্য পরিকল্পিত নগরায়ণের বিকল্প নেই : রাষ্ট্রপতি ‘সেনাবাহিনীর হাজার হাজার অফিসার ও সৈনিক হত্যা করে জিয়া’ যুক্তরাজ্য-যুক্তরাষ্ট্র সফর শেষে দেশের পথে প্রধানমন্ত্রী জিনপিংকে শুভেচ্ছা জানিয়ে হামিদ-হাসিনার চিঠি প্রতিটি ক্ষেত্রে উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি অপরিহার্য: রাষ্ট্রপতি দেশে উৎপাদনশীলতা বাড়াতে একযোগে কাজ করতে হবে: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর খুনি রাশেদ চৌধুরীকে দেশে ফেরানোর চেষ্টা চলছে বঙ্গবন্ধুর পলাতক খুনিদের দেশে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চলছে করোনায় প্রবীণদের স্বাস্থ্য ঝুঁকি বেড়েছে: প্রধানমন্ত্রী

৪০০তম ওয়ানডে খেলার অপেক্ষায় বাংলাদেশ

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ১০ আগস্ট ২০২২  

১৯৭১ সালে ওয়ানডে ক্রিকেটের জন্ম। ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া প্রথমবারের মতো এই ফরম্যাটে মাঠে নামে। তার ১৫ বছর পর ১৯৮৬ সালে বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে যাত্রা শুরু হয়। ওই বছর ৩১ মার্চ এশিয়া কাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে মাঠে নামে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। এরপর একটি একটি ম্যাচ করে বাংলাদেশ খেলে ফেলেছে ৩৯৯ ম্যাচ। আর বুধবার (১০ আগস্ট) নিজেদের ৪০০তম ওয়ানডে খেলতে নামবে বাংলাদেশ। মাইফলকের ম্যাচে অবশ্য কোণঠাসা তামিম ইকবালের দল। হোয়াটওয়াশের লজ্জা এড়াতে ম্যাচ জয়ের বিকল্প নেই বাংলাদেশের সামনে।

১৯৮৬ সালের ৩১ মার্চ গাজী আশরাফ হোসেন লিপুর নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক আঙিনায় পরিচয় ঘটে বাংলাদেশের। শ্রীলঙ্কার মোরাতুয়ায় সেই শুরু, এরপর নিরন্তর পথ চলায় বাংলাদেশ খেলেই চলছে। ১৯৯৭ সালে আইসিসি ট্রফি জয়ের পর ১৯৯৯ সালে প্রথমবার বিশ্বকাপ খেলতে গিয়েই নিজেদের অবস্থান জানান দিয়েছিল বাংলাদেশ। এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। ক্রিকেটের সব অলিগলি পেরিয়ে বাংলাদেশ দল ৪০০ তম ওয়ানডে খেলার অপেক্ষায় এখন।
 
ক্রিকেট বিশ্বের দশম দল হিসেবে বাংলাদেশ ওয়ানডেতে ৪০০ ম্যাচ খেলতে যাচ্ছে। পাকিস্তানের বিপক্ষে এশিয়া কাপে হার দিয়ে শুরু হয়েছিল বাংলাদেশের ওয়ানডে যাত্রা। ২০০২ সালে খালেদ মাসুদের নেতৃত্বে ৫০তম ম্যাচেও পাকিস্তানের বিপক্ষে হেরেছিল লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। বাংলাদেশ শততম ওয়ানডে খেলে ২০০৪ সালে ভারতের বিপক্ষে। ওই ম্যাচে ভারতকে ১৫ রানে হারায় বাংলাদেশ।
 
এরপর ১৫০ ও ২০০তম ম্যাচেও বাংলাদেশ জয় পায়। ২০০৭ ওয়ানডে বিশ্বকাপে ভারতকে এবং ২০০৯ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে তাদের মাটিতে হারায় লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। তবে ২৫০ এবং ৩০০তম ম্যাচে জয় আসেনি। ২০১১ সালে জিম্বাবুয়ের হারারেতে এবং ২০১৫ বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে হেরে যায় বাংলাদেশ। ৩৫০তম ম্যাচে বাংলাদেশ হারায় জিম্বাবুয়েকে। ৪০০তম ম্যাচে কী হয় সেটাই এখন দেখার অপেক্ষা। এই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে বুধবার মাঠে নামবে বাংলাদেশ। কঠিন পরিস্থিতিতে থাকা দলটি জয়ে ফিরতে পারে কিনা সেটাই দেখার।

৩৯৯ ম্যাচের মধ্যে বাংলাদেশ দল খেলেছে সবচেয়ে বেশি জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে।  তাদের বিপক্ষে ৮০ ম্যাচে ৫০ জয়ের পাশাপাশি হার আছে ৩০টিতে। এছাড়া শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৫১ ম্যাচে জয় ৯টিতে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৪৪ ম্যাচ খেলে জয় ২১টিতে, নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৩৮ ম্যাচ খেলে জয় ১০টিতে, পাকিস্তানের বিপক্ষে ৩৭ ম্যাচ খেলে জয় ৫টিতে, ভারতের বিপক্ষে ৩৬ ম্যাচ খেলে ৫টিতে জয়, দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ২৪ ম্যাচ খেলে জয় ৬টিতে, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২১ ম্যাচ খেলে জয় চারটিতে এবং আফগানিস্তান ১১ ম্যাচে ৭টিতে জয় পেয়েছে। এর বাইরে টেস্ট খেলুড়ে দল ছাড়াও বেশ কিছু দলের বিপক্ষে ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। সবমিলিয়ে ৩৯৯ ম্যাচে বাংলাদেশের জয় ১৪৩টি।

ওয়ানডে ক্রিকেটের লম্বা পথচলায় ১৪ অধিনায়কের নেতৃত্বে খেলেছে বাংলাদশে দল। তারা হচ্ছেন- গাজী আশরাফ হোসেন, মিনহাজুল আবেদীন, আকরাম খান, আমিনুল ইসলাম, নাঈমুর রহমান, খালেদ মাসুদ, খালেদ মাহমুদ, হাবিবুল বাশার, রাজিন সালেহ, মোহাম্মদ আশরাফুল, সাকিব আল হাসান, মাশরাফি বিন মুর্তজা ও মুশফিকুর রহিম। ওয়ানডেতে বাংলাদেশের সফলতম অধিনায়ক মাশরাফি। ৮৮ ম্যাচ নেতৃত্ব দিয়ে ৫০ জয় উপহার দিয়েছেন তিনি।