• বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ৮ ১৪৩০

  • || ১০ শা'বান ১৪৪৫

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
অশিক্ষার অন্ধকারে কেউ থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী একুশ মাথা নত না করতে শেখায়: প্রধানমন্ত্রী একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আগামীকাল মিউনিখ সম্মেলনে শেখ হাসিনাকে নিমন্ত্রণ বাংলাদেশের গুরুত্ব বুঝায় গুণীজনদের সম্মাননা ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে অনুপ্রাণিত করবে : রাষ্ট্রপতি একুশে পদকপ্রাপ্তদের অনুসরণ করে তরুণরা সোনার বাংলা বিনির্মাণ করবে আজ একুশে পদক তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে যোগদান শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী মিউনিখ সফর শেষে ঢাকার পথে প্রধানমন্ত্রী বরই খেয়ে দুই শিশুর মৃত্যু, কারণ অনুসন্ধান করবে আইইডিসিআর দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের উপযুক্ত জবাব দিন: প্রধানমন্ত্রী গাজায় যা ঘটছে তা গণহত্যা: শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাক্ষাৎ নেদারল্যান্ডস, যুক্তরাজ্য, আজারবাইজান থেকে বড় বিনিয়োগ আহ্বান জার্মান চ্যান্সেলরের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক শান্তি ফর্মুলা বাস্তবায়নে শেখ হাসিনার সহযোগিতা চাইলেন জেলেনস্কি কাতারের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেছেন শেখ হাসিনা কিছু খুচরো দল তিড়িং বিড়িং করে লাফাচ্ছে: শেখ হাসিনা মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীকে বিশ্বনেতাদের অভিনন্দন

ক্ষুদ্রকুটির শিল্প দেশের অর্থনীতিকে রক্ষা করেছেঃ শিল্পমন্ত্রী

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২৭ জানুয়ারি ২০২৪  

ভোলা প্রতিনিধিঃ ক্ষুদ্রকুটির শিল্প দেশের অর্থনীতিকে রক্ষা করেছে বলে মন্তব্য করেছেন শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন। তিনি বলেন, কুটির শিল্পকে ধরে রাখতে উদ্যোক্তাদের উন্নয়নে কাজ করছে সরকার। এ শিল্পকে বঙ্গবন্ধু ১৯৫৭ সালে নেতৃত্ব দিয়েছেন। তাই উদ্যোক্তাদেন সব ধরনের সহযোগীতায় আমরা প্রস্তুত।

শুক্রবার সকালে ভোলার বিসিক শিল্প নগরীতে গ্যাস সংযোগ লাইনের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্ধোধন কালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী আরও বলেন, ভোলা একটি সম্ভাবনাময় জেলা। এখানে গ্যাসের মজুদ আছে তাই এখানে সার কারখানার সাম্ভ্যবতা যাচাই করা হচ্ছে। শিল্পমন্ত্রী আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষনা অনুযায়ি পদ্মাসেতুকে কেন্দ্র করে দক্ষিনাঞ্চলের অর্থনৈতিক উন্নয়ন করা হবে। সে লক্ষ্যে কাজ করছে সরকার।

ভোলা বিসিক শিল্পনগরির চত্বরে অনুষ্ঠিত উদ্ধোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন,  জেলা প্রশাসক আরিফুজ্জামান। বক্তব্য রাখেন, শিল্প মন্ত্রনালয়ের সিনিয়র সচিব জাকিয়া সুলতানা প্রমুখ।

১৯৯৩ সালে ভোলা শহরের চরনোয়বাদ চৌমুহনী সংলগ্ন এলাকায় ১৪ একর জমির উপর বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশন বিসিক স্থাপিত হয়। ২০০০ সালের দিকে ৮৯ টি প্লটে ৫০ টি কারখানা নিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে বিসিক শিল্পনগরি। 'সি' ক্যাটাগরির এই বিসিকে গ্যাস সংযোগ দেয়ার ঘোষনার  পর থেকেই  উদ্যোক্তারা নতুন করে স্বপ্ন দেখতে শুরু করেন। অবশেষে সে স্বপ্ন বাস্তবায়ন হল।