• মঙ্গলবার ১৮ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৪ ১৪৩১

  • || ১০ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
তারেকসহ পলাতক আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে কোরবানির পশু বেচাকেনা এবং ঘরমুখো মানুষের নিরাপত্তার নির্দেশ তিস্তা মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়নে চীনের কাছে ঋণ চেয়েছি গ্লোবাল ফান্ড, স্টপ টিবি পার্টনারশিপ শেখ হাসিনাকে বিশ্বনেতৃবৃন্দের জোটে চায় শিশুর যথাযথ বিকাশ নিশ্চিতে সকল খাতকে শিশুশ্রমমুক্ত করতে হবে শিশুশ্রম নিরসনে প্রত্যেককে আরো সচেতন হতে হবে : প্রধানমন্ত্রী ব্যবসায়িদের প্রতি নিয়ম নীতি মেনে কার্যক্রম পরিচালনার আহ্বান বিনামূল্যে সরকারি বাড়ি গৃহহীনদের আত্মমর্যাদা এনে দিয়েছে প্রধানমন্ত্রীর জিসিএ লোকাল অ্যাডাপটেশন চ্যাম্পিয়নস অ্যাওয়ার্ড গ্রহণ আশ্রয়ণের ঘর মানুষের জীবন বদলে দিয়েছে: প্রধানমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত ঘরবাড়ি তৈরি করে দেব : প্রধানমন্ত্রী নতুন সেনাপ্রধান ওয়াকার-উজ-জামান প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাচ্ছে সাড়ে ১৮ হাজার পরিবার শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস আজ শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন সোনিয়া গান্ধী মোদীকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানালেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শেখ হাসিনা-মোদি বৈঠকে দু’দেশের সম্পর্ক আগামীতে আরো দৃঢ় হবে বাংলাদেশ ভুটান থেকে জলবিদ্যুৎ আমদানি করতে আগ্রহী : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা-নরেন্দ্র মোদী সংক্ষিপ্ত শুভেচ্ছা বিনিময় অ্যাক্রেডিটেশন দেশের অর্থনীতিকে সুদৃঢ় করতে সহায়তা করে: রাষ্ট্রপতি

হাতছানি দিয়ে দিয়ে ডাকছে ‘লাল শাপলার লেক’

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ২৩ জানুয়ারি ২০২৪  

সিলেটের জাফলং, লালাখাল ও শ্রীপুর ভ্রমণপিপাসুদের কাছে বেশ প্রিয়। এর পাশাপাশি পর্যটকদের যেন হাতছানি দিয়ে ডাকছে ‘লাল শাপলার লেক’। লেকটি দেখতে পর্যটকদের কোনো অতিরিক্ত খরচ লাগছে না। এখন সহজেই সেখানে গিয়ে আনন্দ উপভোগ করতে পারবেন ভ্রমণপিপাসুরা।

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলার জৈন্তাপুর ইউনিয়নের শ্রীপুর এলাকায় সিলেট-তামাবিল মহাসড়কের পাশে এ লেকের অবস্থান। চা বাগান বেষ্টিত প্রায় ১৫ একর জায়গাজুড়ে অপরূপ সৌন্দর্যে ভরপুর এ লাল শাপলা লেক।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, জৈন্তাপুর উপজেলা বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে নানান প্রাকৃতিক পর্যটন কেন্দ্র। এর মধ্যে শ্রীপুর পিকনিক সেন্টার ও শ্রীপুর চা বাগানের মধ্যে সুবিশাল এলাকাজুড়ে থাকা লাল শাপলার লেকটি অন্যতম। লেকটি ঘুরতে পর্যটকদের নৌকার প্রয়োজন পড়ে না। হেঁটে সম্পূর্ণ লেকটি দেখা যায়। অতিরিক্ত খরচ হয় না। লেকটি দেখার পাশাপাশি শ্রীপুর পিকনিক স্পট, শ্রীপুর (রাংপানি) নদী, খাসিয়াপুঞ্জি, আদুরী ঝর্ণা দেখারও সুযোগ রয়েছে।

জৈন্তাপুর পুরার্কীতি ও পর্যটন উন্নয়ন সংরক্ষণ কমিটির সভাপতি ইমরান আহমদ বলেন, লাল শাপলার লেকটির সৌন্দর্য দেখার মতো। এর পাশেই সিলেট-তামাবিল মহাসড়ক। তবে এটি অনেকটা লোকচক্ষুর আড়ালে রয়ে গেছে। লাল শাপলার লেকটি ভ্রমণপিপাসুদের আনন্দ জোগাবে। পাশাপাশি অন্যান্য পর্যটন কেন্দ্রও দেখার সুযোগ রয়েছে।

লেকটিতে যেভাবে যাতায়াত করবেন: সিলেট শহর থেকে বাস কিংবা লেগুনাযোগে জৈন্তাপুর উপজেলার শ্রীপুরে নামতে হবে। এরপর অটোরিকশায় করে শহর থেকে সরাসরি শ্রীপুর পয়েন্টে নামা যায়। এছাড়া প্রাইভেটকার, মোটরসাইকেলে জৈন্তাপুরের এই লাল শাপলার লেকে সরাসরি আসা যায়।