• মঙ্গলবার   ০৯ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৫ ১৪২৯

  • || ১০ মুহররম ১৪৪৪

আলোকিত ভোলা
ব্রেকিং:
রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে বঙ্গমাতার মনোভাব প্রতিফলিত হয়েছে বঙ্গমাতার সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা স্বাধীনতার সংগ্রামে বঙ্গবন্ধুর সারথি ছিলেন আমার মা: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গমাতা কঠিন দিনগুলোতে ছিলেন দৃঢ় ও অবিচল: রাষ্ট্রপতি ফজিলাতুন নেছা মুজিব দৃঢ়চেতা-বলিষ্ঠ চরিত্রের অধিকারী ছিলেন বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯২তম জন্মবার্ষিকী আজ বাংলাদেশে সহায়তা অব্যাহত রাখবে চীন: ওয়াং ই চীনে ৯৯ শতাংশ পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা পাবে বাংলাদেশ মা ও শিশু স্বাস্থ্য সেবা জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিয়েছি মায়ের দুধ শিশুর সর্বোত্তম খাবার: রাষ্ট্রপতি শেখ কামাল ছিলেন বহুমাত্রিক প্রতিভার অধিকারী: প্রধানমন্ত্রী শেখ কামাল ছিলেন ক্রীড়া ও সংস্কৃতিমনা সুকুমার মনোবৃত্তির মানুষ আন্তর্জাতিক পর্যায়ে দেশের মর্যাদাকে সমুন্নত করবে যুবসমাজ ‘শেখ হাসিনার কাছ থেকে শিখুন’ ঘাতকরা আজও তৎপর, আমাকে ও আ’লীগকে সরাতে চায়: প্রধানমন্ত্রী বিচারকদের সততা-নিষ্ঠা নিয়ে দায়িত্ব পালন করতে হবে: রাষ্ট্রপতি একনেকে ২ হাজার কোটি টাকার ৭ প্রকল্প অনুমোদন বাঁধ টেকসই করতে বেশি করে ঝাউগাছ লাগানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ‘আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার’ পেলো বাংলাদেশ বিএনপির আমলে মানুষের ভোটের অধিকার ছিল না: প্রধানমন্ত্রী

সুন্দরবনে আত্মসমর্পণকারী দস্যুরা পেল র‍্যাবের ঈদ উপহার

আলোকিত ভোলা

প্রকাশিত: ৫ জুলাই ২০২২  

সুন্দরবনে আত্মসমর্পণকারী ২৮৪ জন জলদস্যুদের মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ করেছে র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)-৮। মঙ্গলবার (৫ জুলাই) সকাল সাড়ে ১০টায় ফুয়েল জেটি সংলগ্ন এলাকায় তাদের হাতে এই উপহার সামগ্রী তুলে দেয় র‍্যাব। 

এসময় র‍্যাব-৮ এর অধিনায়ক ডিআইজি জামিল হাসান বলেন, ২০১৮ সালের ১ নভেম্বর সুন্দরবনকে দস্যুমুক্ত ঘোষণার পর সেখানে এখন সুবাতাস বইছে। আত্মসমর্পণকারী জলদস্যুরা পুনর্বাসিত হয়ে স্বাভাবিক জীবনযাপন করছেন। ধারাবাহিকভাবে বিভিন্ন সময়ে এসব দস্যুদের মাঝে ঈদ উপহারসহ খাদ্য সামগ্রী দিয়ে যাচ্ছে র‍্যাব। আসন্ন ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে এবারও তাদেরকে ঈদের খাদ্য সামগ্রী দেয়া হয়েছে।

২৭টি দস্যু বাহিনীর ২৮৪ জনকে মঙ্গলবার সকালে চাউল, তেল, সেমাই, ঘি, চিনি, দুধ, লবন, বাদাম, কিসমিস, মসল্লা ও পেঁয়াজসহ তাদের যাতায়াত ভাড়াও দেয়া হয় বলে জানান ডিআইজি জামিল হাসান। 

তিনি বলেন, সুন্দরবনে দস্যুরা আত্মসমর্পণ করায় মাওয়ালী, বাওয়ালী বনজীবী ও বন্যপ্রাণী সবাই এখন নিরাপদে রয়েছে। নির্ভয়ে নির্বিঘ্নে সুন্দরবনে আসছে দর্শনার্থী-পর্যবেক্ষক ও জাহাজ বণিকরা। এভাবেই সরকারের দূরদর্শীতায় সুন্দরবনকেন্দ্রিক অর্থনৈতিক গতিশীলতার ব্যাপক সম্ভবনার দ্বার উন্মোচিত হয়েছে বলেও জানান র‍্যাবে এই কর্মকর্তা।